Breaking News

কালিহাতীতে নির্বাচনী সহিংসতায় প্রধান শিক্ষককে কুপিয়ে আহত

সাইদুর রহমান সমীর,টাঙ্গাইল প্রতিনিধি
টাঙ্গাইলের কালিহাতীত উপজেলার বীরবাসিন্দা ইউনিয়নে নির্বাচনী সহিংসতায় স্বতন্ত্রপ্রার্থীর এক কর্মী স্থানীয় স্কুলের প্রধান শিক্ষককে কুপিয়ে আহত করার অভিযোগ উঠেছে নৌকা প্রার্থীর কর্মী-সমর্থকদের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় স্বতন্ত্রপ্রার্থী মো. সোহরাব আলী নির্বাচন কমিশনের নিকট লিখিত অভিযোগ করেছেন।

১২ জুলাই, বুধবার সন্ধ্যায় উপজেলার বীরবাসিন্দা ইউনিয়নের কস্তুরী পাড়া জামে মসজিদের সামনে এ ঘটনা ঘটে। আহত প্রধান শিক্ষক আরিফুর রহমান লিটন (৫০) কস্তুরী পাড়া গ্রামের মজিরব সিকাদারের ছেলে। তিনি কস্তুরী পাড়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হিসেবে কর্মরত রয়েছে। গুরতর আহত অবস্থায় ওই শিক্ষক ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন।

স্থানীয়রা জানায়, উপজেলার বীরবাসিন্দা ইউপি নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো.সোহরাব আলীর (মটরসাইকেল প্রতীক) প্রধান নির্বাচনী সমন্বায়ক হিসাবে দায়িত্ব পালন করছেন লিটন মাস্টার। তিনি বুধবার দিনব্যাপী নির্বাচনী প্রচারণা শেষে কস্তুরি পাড়া জামে মসজিদে নামাজ আদায় করেন। নামাজ শেষ বের হয়ে আবুখার ওষুধের দোকানের সামনে আসামাত্র পূর্ব থেকে ওঁতপেতে থাকা ১০ থেকে ১৫ জন সন্ত্রাসী কুপিয়ে তাকে গুরুতর আহত করে।

পার্শ্ববতী দোকানদার তাকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। অবস্থার অবনতি হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, আমরা বাজারে নির্বাচনী প্রচারণা চালাচ্ছিলাম। হঠাৎ উত্তর দিক থেকে কয়েকজন লোক নৌকার স্লোগান দিয়ে লিটন মাস্টারের উপর হামলা চালায়। তার মাথা লক্ষ করে কেউ একজন কোপ দেয়। অপররা এলোপাতাড়ি বাড়ি মারতে থাকে। মাস্টার মাটিতে লুটিয়ে পড়ে চিৎকার করলে স্থানীয় লোকজন এগিয়ে আসে। পরে তারা পালিয়ে যায়।

তারা আরও জানায়, বৃহস্পতিবার দুপুরেও শামীম নামের এক ব্যক্তি তার ব্যটারিচালিত অটোরিকশা ভাড়ায় মোটরসাইকেল প্রতিকের প্রচারণা চালানো কালে কয়েকজন লোক হামলা চালিয়ে গাড়ি ও মাইক ভাঙচুর করেছে।

বীরবাসিন্দা ইউপি নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. সোহরাব আলী বলেন, এ ঘটনায় আমি জেলা নির্বাচন অফিসার বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছি। তিনি আমাকে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের আশ্বাস দিয়েছেন।

এ বিষয়ে সহকারী পুলিশ সুপার (কালিহাতী সার্কেল) মো.শরিফুল হক জানান, সামনে আমাদের জাতীয় নির্বাচন। আমরা যে কোনো নির্বাচনী সহিংসতাকে খুব গুরুত্ব দিয়ে দেখছি। তবে বীরবাসিন্দা ইউপি নির্বাচনের সহিংসতা নিয়ে কেউ কোনো প্রকার অভিযোগ করেননি।

প্রকাশ, আগামী ১৭ জুলাই এ ইউনিয়নে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

Type and hit Enter to search

Close