কালিহাতীতে পৌলি নদীতে অবৈধ ড্রেজিং, পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু

সাইদুর রহমান সমীর, টাঙ্গাইল প্রতিনিধি:টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার পৌলি নদীতে বাংলা ড্রেজারের মাধ্যমে অবৈধ ড্রেজিং করছে স্থানীয় প্রভাবশালী বালু খেকোরা। শুক্রবার (৪ মার্চ) দুপুরে সেই ড্রেজিং এর গর্তের পানিতে ডুবে এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে।

বিষয়টি এলেঙ্গা পৌরসভার ৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল বারেক নিশ্চিত করেছেন।
নিহত শিশু এলেঙ্গা পৌরসভার মহেলা গ্রামের লতিফ মিয়ার মেয়ে লামিয়া আক্তার (১১)। সে মহেলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রী।

স্থানীয়রা জানান, এলংজানি ও পৌলি নদী ড্রেজিং এর নামে স্থানীয় একটি অসাধু মহল অপরিকল্পিতভাবে ড্রেজিং এর মাধ্যমে নদীতে বড় গর্তের সৃষ্টি হওয়ায় নদীর পার ও আশে পাশের বসত বাড়ী গাছ পালা হুমকির মুখে রয়েছে। বিষয়টি নিয়ে প্রতিবাদ করলে বিভিন্নভাবে হুমকি দেয় তারা । সেই ড্রেজিং এর গর্তে পড়ে শিশু লামিয়ার মৃত্যু হয়। অবৈধ ও অপরিকল্পিত ড্রেজিং বন্ধের দাবি জানিয়েছেন স্থানীয়রা।
স্থানীয় কাউন্সিলর আব্দুল বারেক জানান, দুপুরে লামিয়াসহ তিন শিশু তার দাদির সাথে গোসল করতে যায়। সেখানে গোসল করে সকলে উপরে উঠলেও লামিয়া নিখোঁজ হয়। বিষয়টি এলেঙ্গা ফায়ার সার্ভিসকে অবগত করা হয়।
তিনি আরও জানান, নদী খননের নামে আওয়ামী লীগের প্রভাব শালী নেতারা বাংলা ড্রেজার দিয়ে অপরিকল্পিত খনন করে লাখ লাখ টাকার মাটি বিক্রি করছে। এতে নদীতে বড় বড় গর্ত বা ডোবায় পরিণত হয়েছে। তারা এতোটাই প্রভাবশালী যে তাদের নাম বলা যাবে না। তবে অবৈধ ড্রেজিং বন্ধের দাবি জানান তিনি।

এলেঙ্গা ফায়ার সার্ভিসের টিম লিডার মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে ডুবুরি নামিয়ে দিয়ে শিশুর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। আইনী পক্রিয়া শেষে লাশ তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

এ বিষয়ে টাঙ্গাইল পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী সিরাজুল ইসলাম বলেন, স্থানীয় এক প্রভাবশালী নেতা ১৫ দিন যাবত ড্রেজিং করছে। ড্রেজিং বন্ধের জন্য স্থানীয় ইউএনওকে অবগত করা হয়েছে।

buttons=(Accept !) days=(20)

Our website uses cookies to enhance your experience. Learn More
Accept !
To Top